Monday, 23 May, 2022

সর্বাধিক পঠিত

কোন ফল ওজন কমাতে সাহায্য করে ?


বাড়তি ওজন মানুষের জীবনে কখনো সুফল বয়ে আনে না। বেশি ওজনের মানুষেরা বিভিন্ন ধরনের রোগে ভুগে থাকেন। অতিরিক্ত ওজন মানুষের শারীরীক সৌন্দর্যও নষ্ট করে।

সেকারণেই ওজন নিয়ন্ত্রণে ডায়েট, খাদ্যাভ্যাসে পরিবর্তন, নিয়মিত ব্যায়ামের কোন বিকল্প নেই। খাদ্যাভ্যাসে কিছু কিছু ফলের উপস্থিতি ওজন নিয়ন্ত্রনে অনেক সহায়তা করে। ওজন কমাতে সাহায্যকারী ফল নিয়েই আজকের আলোচনা।

পরিমিত পরিমাণে পানি পান করলে শরীরের বর্জ্য দূর হয় এবং মেদ কমে যায়। এছাড়া শরীর সহজে খরচ করতে পারে সে পরিমাণে কম  ক্যালোরি গ্রহণ করা উচিত।

আরো পড়ুন
বাগদা চিংড়ি পেল দেশের জিআই সনদ
Black Tiger_ বাগদা চিংড়ি

কোনো একটি দেশের নির্দিষ্ট ভূখণ্ডের মাটি, পানি, আবহাওয়া ও সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে উচ্চতা এবং সেখানকার জনগোষ্ঠীর সংস্কৃতি যদি কোনো একটি পণ্য Read more

দূর্যোগপূর্ন আবহাওয়ায় কৃষিতে করনীয়
দূর্যোগপূর্ন আবহাওয়ায় কৃষিতে করনীয়

বাংলাদেশ একের পর এক দূর্যোগ পর্যায়ক্রমে আসতে থাকে। আইলা, সিডর পর এবার আসছে অশনি প্রভাব। ঘুর্নিঝড় অশনির প্রভাবে চলমান দূর্যোগপূর্ন Read more

খাদ্য তালিকায় বেশি করে শাক-সবজি ও ফল থাকতে হবে। ভিটামিন, খনিজ, পানি ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্টে পূর্ণ ফল খেতে হবে। যদি প্রতিদিন চারবার ফল খাওয়া যায়, তবে অতিরিক্ত ক্যালোরি গ্রহণের মাত্রা কমে যায়।

কোন ধরনের ফল ওজন কমায়

কিন্তু সব ধরণের ফলই ওজন কমায় না। এমন কিছু ফল রয়েছে ওজন কমাতে মহৌষধ হিসেবে কাজ করে ।

কমলা লেবু

ভিটামিন ‘সি’ সমৃদ্ধ ফল কমলা। এতে ক্যালরিও কম পাওয়া যায়। একই সাথে এটি অনেকক্ষণ পেট ভরা থাকতে সাহায্য করে এবং ওজন কমায়।

পুষ্টিকর বেদানা

এ ফলটিতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণ ফাইবার, লো ক্যালোরি সমৃদ্ধ। ওজন কমাতে খাদ্য তালিকায় এ ফল রাখা অত্যাবশ্যক।

মজার ফল নাশপাতি

নাশপাতিতে বিদ্যমান ফ্লাভানয়েড পলিমারস, যা দেহের ওজন নিয়ন্ত্রণ করে।

ক্যাপসিকাম

প্রতিদিন খাবারে ক্যাপসিকাম হলে তা ওজন নিয়ন্ত্রণে সহায়তা করে। দেহের বাদামি ও জমাট চর্বিকে শক্তি হিসেবে পোড়াতে ক্যাপসাইসিন শ্বেত রক্তকণিকাকে অনুপ্রাণিত করে।

মিষ্টি ফল সফেদা

এই ফলটি দেহের মেটাবোলিজম হার বাড়িয়ে দেয়। শরীরকে সুস্থ রাখার পাশাপাশি ফ্যাট গলাতে সফেদা বেশ কার্যকর। এতে থাকা ফাইবার দীর্ঘ সময় পেট ভরিয়ে রাখে ও খিদে নিয়ন্ত্রণ করে।

বিদেশি ফল অ্যাভোকাডো

অ্যাভোকাডো আমাদের দেশীয় ফল নয়। এটি খেলে তাড়াতাড়ি ক্ষুধা পায় না। এতে রয়েছে  মোনো-স্যাটিউরেটেড ফ্যাটি এ্যাসিড। এটি পেটে জমে থাকা মেদ কমাতে খুবই কার্যকরী।

ঔষধি আনারস

আনারস একটি ঔষধি ফল। এটি পেটের মেদ কমাতে খুবই উপকারী।  এটি খেলে ক্যালোরির মাত্রা কম থাকে, পেটের হজম শক্তি বৃদ্ধি হয় এবং মেদ কমাতে বেশ উপকারী।

আঙুর ফল

শরীরের বাড়তি মেদ কমাতে আঙুরের রস খুবই উপকারী। Grapes ওজন কমাতে এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে খুবই উপকারী।

সবজি পেঁপে

পেঁপেতে ফ্যাটের পরিমাণ কম, বিদ্যমান এনজাইম হজমে সাহায্য করে এবং ফ্যাট ভাঙতে পারে। যার ফলে ওজন কমে যায়।

দেশি ফল তাল

ক্যালোরি কম, ফাইবার ও সরবিটলের উপস্থিতি থাকে তালে। ফলে রক্তচাপ কম রাখতে সাহায্য করে এবং কোষ্ঠকাঠিন্য সারাতে সাহায্য করে।

ব্লুবেরির গুণ

ব্লুবেরির মধ্যে ফ্লেভানল বিদ্যমান। এটি ওজন কমাতে সাহায্য করে। অ্যনথোসিয়ানিন রয়েছে যা অনেকক্ষণ পেট ভরতি রাখতে সাহায্য করে। এছাড়া ক্যালসিয়াম, আয়রন এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট বিদ্যমান।

ক্যলরির আপেল

লো ক্যালোরি ও উচ্চ ফাইবার-যুক্ত ফল। প্রতিদিনের ডায়েটে প্রয়োজনীয় ফাইবার ও ক্যালরির পাঁচ ভাগের এক ভাগের যোগান দেয় আপেল। উচ্চ আঁশ ও ফ্লাভানয়েড পলিমারস ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে।

0 comments on “কোন ফল ওজন কমাতে সাহায্য করে ?

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!